নতুন বছরে তাক লাগাবে যে স্মার্টফোন

২০১৭ সালে আইফোনের দশকপূর্তি হচ্ছে। মার্কিন প্রযুক্তিপণ্য নির্মাতা প্রতিষ্ঠান অ্যাপল নিশ্চয়ই চাইবে চমক দিতে।

২০০৭ সালে মোবাইল ফোনের দুনিয়ায় বৈপ্লবিক পরিবর্তন আনার পাশাপাশি স্মার্টফোনের জনপ্রিয়তা বাড়িয়েছিল স্টিভ জবসের হাত ধরে আসা আইফোন। বাজার গবেষণা প্রতিষ্ঠান গার্টনারের তথ্য অনুযায়ী, এ বছর ১৫০ কোটি স্মার্টফোন বিক্রি হবে।

শুধু তা-ই নয়, এ বছর স্মার্টফোনের দুনিয়ায় আরও বেশ কিছু পরিবর্তন আসবে। ২০০৭ সালে স্টিভ জবস যখন আইফোন উদ্বোধন করেছিলেন (আইফোন টুজি), তা মোবাইল ফোন বাজারের সব সূত্র ভেঙে ফেলেছিল। সাড়ে তিন ইঞ্চি মাপের টাচস্ক্রিনযুক্ত ওই ফোনে মাল্টিটাস্ক করার সুবিধা ছিল।

এজ, ওয়াই-ফাই, ব্লুটুথসহ অ্যাপলের নিজস্ব অপারেটিং সিস্টেমের ওই ফোন প্রযুক্তি বিশ্বে তাক লাগিয়েছিল। টাইম ম্যাগাজিন ওই বছর ‘সেরা উদ্ভাবন’ তকমা দিয়েছিল আইফোনকে।

এরপর আস্তে আস্তে স্মার্টফোনের সংজ্ঞা হিসেবে টাচস্ক্রিন, ইন্টারনেট সুবিধা ও বিভিন্ন অ্যাপ্লিকেশন খাকার বিষয়টি নির্ধারিত হয়ে যায়। গত এক দশকে আইফোনের মতো করে বাজার কাঁপিয়ে দেওয়ার মতো কোনো স্মার্টফোন মডেল আর বাজারে আসেনি।

২০১৭ সালে আইফোনের দশকপূর্তি হচ্ছে। মার্কিন প্রযুক্তিপণ্য নির্মাতা প্রতিষ্ঠান অ্যাপল নিশ্চয়ই চাইবে চমক দিতে।

২০০৭ সালে মোবাইল ফোনের দুনিয়ায় বৈপ্লবিক পরিবর্তন আনার পাশাপাশি স্মার্টফোনের জনপ্রিয়তা বাড়িয়েছিল স্টিভ জবসের হাত ধরে আসা আইফোন। বাজার গবেষণা প্রতিষ্ঠান গার্টনারের তথ্য অনুযায়ী, এ বছর ১৫০ কোটি স্মার্টফোন বিক্রি হবে।

শুধু তা-ই নয়, এ বছর স্মার্টফোনের দুনিয়ায় আরও বেশ কিছু পরিবর্তন আসবে। ২০০৭ সালে স্টিভ জবস যখন আইফোন উদ্বোধন করেছিলেন (আইফোন টুজি), তা মোবাইল ফোন বাজারের সব সূত্র ভেঙে ফেলেছিল। সাড়ে তিন ইঞ্চি মাপের টাচস্ক্রিনযুক্ত ওই ফোনে মাল্টিটাস্ক করার সুবিধা ছিল।

এজ, ওয়াই-ফাই, ব্লুটুথসহ অ্যাপলের নিজস্ব অপারেটিং সিস্টেমের ওই ফোন প্রযুক্তি বিশ্বে তাক লাগিয়েছিল। টাইম ম্যাগাজিন ওই বছর ‘সেরা উদ্ভাবন’ তকমা দিয়েছিল আইফোনকে।

এরপর আস্তে আস্তে স্মার্টফোনের সংজ্ঞা হিসেবে টাচস্ক্রিন, ইন্টারনেট সুবিধা ও বিভিন্ন অ্যাপ্লিকেশন খাকার বিষয়টি নির্ধারিত হয়ে যায়। গত এক দশকে আইফোনের মতো করে বাজার কাঁপিয়ে দেওয়ার মতো কোনো স্মার্টফোন মডেল আর বাজারে আসেনি।